Thursday, May 30, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

সংলাপের শর্ত নাকচ করে ফখরুল: আগে প্রধানমন্ত্রীকে পদত্যাগ করতে হবে

ফখরুল বলেন, আমরা আমাদের জীবন দিয়ে লড়াই করছি, অনেক ভাই চলে গেছে, প্রাণ দিয়েছে, রক্ত দিয়েছে; অনেক মা-বোনের ওপর অত্যাচার হয়েছে, অনেক সন্তান পিতৃহারা হয়েছে, আমাদের পেছনে ফিরে তাকানোর কোনো সময় নেই

আপডেট : ১৬ অক্টোবর ২০২৩, ০৯:৫৯ পিএম

বাংলাদেশের রাজনৈতিক পরিস্থিতি স্বাভাবিক করতে সংলাপের কথা বলেছে ঢাকা সফর করা মার্কিন প্রাক-নির্বাচনী পর্যবেক্ষক দল। তাদের সুপারিশ ধরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, বিএনপির সঙ্গে সংলাপে বসতে শর্ত দেন।

এবার সেই শর্ত নাকচ করে দিলেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। তিনি বলেছেন, “যুক্তরাষ্ট্রের প্রাক-নির্বাচনী পর্যবেক্ষক দল একটা বিবৃতি দিয়েছেন। এ বিবৃতির প্রধান কথা সংলাপ। সেটার জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেছেন, ‘আমরা তখনই আলোচনায় বসতে রাজি আছি, যখন বিএনপি সমস্ত শর্ত বাদ দিয়ে আলোচনা আসবে।’ আমার প্রশ্ন, আপনারা কি সাংবিধানিকভাবে বৈধ? এটা আপনাদের প্রমাণ করতে হবে। সবার আগে প্রধানমন্ত্রীকে পদত্যাগ করতে হবে।”

সোমবার (১৬ অক্টোবর) বিকেলে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে যুবদলের এক সমাবেশে এসব কথা বলেন তিনি।

মির্জা ফখরুল বলেন, “সংবিধান পরিবর্তন করে পঞ্চদশ সংশোধনী নিয়ে এসেছেন সম্পূর্ণ বেআইনিভাবে। অবৈধভাবে আপনারা ক্ষমতা দখল করে বসে আছেন।”

তত্ত্বাবধায়ক সরকারকে অসাংবিধানিক ঘোষণা করে সুপ্রিম কোর্টের রায়ের কথা তুলে ধরে বিএনপি নেতা বলেন, “বিচারপতি খায়রুল হক একটা ছোট রায় দিয়েছিলেন। তাতে তিনি বলেছিলেন যে, এটা (তত্ত্বাবধায়ক) প্রাসঙ্গিক নয়, (সংবিধানের সঙ্গে) সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়। তবে দেশের স্বার্থে জনগণের স্বার্থে আরও দুইটা নির্বাচন এই নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে করা যেতে পারে।”

“তাদের শর্ত ছিল বিচারককে (প্রধান উপদেষ্টা) করা যাবে না। সেই শর্ট রায় ১৬ মাস পরে পূর্ণাঙ্গ রায় হিসেবে বেরিয়েছিল। কিন্তু শর্ট ভার্ডিক্ট ও পূর্ণাঙ্গ ভার্ডিক্টে কোনো মিল ছিল না। পূর্ণাঙ্গ ভার্ডিক্ট দেওয়ার আগে সংসদে আওয়ামী লীগ জনগণের সঙ্গে সম্পূর্ণ প্রতারণা করে আইনটা পাস করেছিল। আজকে আপনারা বলছেন, সংবিধানের ভিত্তিতে হতে হবে। তাহলে সবার আগে আপনাকে (শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার) পদত্যাগ করতে হবে। কারণ, আপনারা অবৈধ।”

প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে ফখরুল বলেন, “আজকে যে বলছেন সংবিধানের ভিত্তিতে হতেই হবে, তাহলে সবার আগে আপনাকে পদত্যাগ করতে হবে। কারণ আপনি অবৈধভাবে আছেন। ভূতের মুখে রাম নাম শোভা পায় না। আপনি জনগণের সঙ্গে প্রতারণা করে, জোর করে ক্ষমতায় আছেন। আমাদের কথা পরিষ্কার, আগে পদত্যাগ করেন, সংসদকে বিলুপ্ত করেন, নিরপেক্ষ সরকারের হাতে ক্ষমতা দেন এবং একটি নির্বাচন কমিশন গঠন করে তাদের মাধ্যমে নির্বাচনে আসেন।”

বিএনপি মহাসচিব বলেন, “সরকার রাষ্ট্রযন্ত্রকে ব্যবহার করে, বিচার বিভাগ, প্রশাসনসহ সবকিছু দলীয়করণ করছে। পুলিশ সদস্যদের বলতে চাই, আমরা জানি আপনারা বেআইনি কাজ করতে চান না। আমরা জানি আপনারা আইনের শাসন মেনে কাজ করতে চান। এই আওয়ামী লীগ আপনাদের সংবিধানকে দূরে রেখে, আইনের শাসন দূরে রেখে সাধারণ মানুষের ওপর অত্যাচার ও নির্যাতন করতে বাধ্য করে।”

কয়েক দিনের মধ্যেই সরকার পতনের চূড়ান্ত আন্দোলন ঘোষণা হবে জানিয়ে নেতাকর্মীদের সর্বাত্মক প্রস্তুতি নিতে বলেন বিএনপি মহাসচিব।

তিনি বলেন, “একটাই লক্ষ্য আমাদের এখন যে, সরকারের পতন ঘটাতে হবে। একটাই লক্ষ্য যে, জনগণকে সঙ্গে নিয়ে দুর্বার আন্দোলনের মধ্য দিয়ে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করে তাকে বিদেশে চিকিৎসার জন্য পাঠাতে হবে এবং আমাদের নেতা তারেক রহমানকে দেশে ফিরিয়ে আনতে হবে।”

তিনি আরও বলেন, “কথা একটাই, আমরা আমাদের জীবন দিয়ে লড়াই করছি, অনেক ভাই চলে গেছে, প্রাণ দিয়েছে, রক্ত দিয়েছে; আমাদের অনেক মা-বোনের ওপর অত্যাচার করা হয়েছে, আমাদের অনেক সন্তান পিতৃহারা হয়েছে, অনেক মা সন্তানহারা হয়েছে, আমাদের পেছনে ফিরে তাকানোর কোনো সময় নেই।”

About

Popular Links