Tuesday, June 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

আত্মসমর্পণের পর কারাগারে বিএনপি নেতা হাফিজ

কারাগারে তাকে চিকিৎসা ও ডিভিশন দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন আদালত

আপডেট : ০৫ মার্চ ২০২৪, ১২:৪২ পিএম

রাজধানী ঢাকার গুলশান থানার নাশকতার এক মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমদকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছে আদালত। একইসঙ্গে কারাগারে ডিভিশন ও যথাযথ চিকিৎসা নিশ্চিতে কারা কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

মঙ্গলবার (৫ মার্চ)  ঢাকা মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট রাজেশ চৌধুরীর আদালত এ আদেশ দেন।

ভারতের দিল্লিতে দীর্ঘ আড়াই মাসের চিকিৎসা শেষে গত রবিবার দেশে ফিরেছেন মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ। দিল্লির ফরটিস হাসপাতালে হাঁটুতে অস্ত্রোপচার করানো হয়েছিল বিএনপির এই নেতার।

সোমবার হুইল চেয়ারে তিনি আদালতে হাজির হয়ে আত্মসমর্পণ করেন এবং জামিন চান। আদালত জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে চিকিৎসা ও ডিভিশন দেওয়ার নির্দেশ দেন।

২০২৩ সালের ২৮ ডিসেম্বর একই আদালত পৃথক দুই ধারায় তাকে ২১ মাসের কারাদণ্ডের রায় ঘোষণা করেন। মামলায় হাফিজ উদ্দিন আহমেদ ছাড়া বিএনপির আরও পাঁচজনকে তিন বছর কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ২০১১ সালের ৪ জুন সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে গুলশান থানাধীন মহাখালী ওয়ারলেস গেট পানির ট্যাংকির সামনে রাস্তার উপর অবৈধ সমাবেশ থেকে পুলিশের কাজে বাধা প্রদান এবং আক্রমণ করেন আসামিরা। এসময় রাস্তার চলাচলরত গাড়ি ভাংচুর ও আগুন ধরিয়ে দেন।

২০১৪ সালের ২৯ এপ্রিল মামলাটি তদন্তের পর গুলশান থানার এসআই কামরুল হাসান তালুকদার আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। ২০২২ সালের ২৫ এপ্রিল এ মামলায় আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করে বিচার শুরুর আদেশ দেন। ২০১৪ সালের ২৯ এপ্রিল মামলাটি তদন্তের পর গুলশান থানার এসআই কামরুল হাসান তালুকদার আদালতে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দাখিল করেন। মামলায় ১২ সাক্ষীর মধ্যে সাতজনের সাক্ষ্য নেওয়া হয়।

About

Popular Links