Friday, June 14, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা নিয়ে জিএম কাদেরের উদ্বেগ

দেশবাসীকে শুভেচ্ছা জানিয়ে তিনি বলেন, সবাই মিলে যাতে ঈদের আনন্দ নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিতে পারি, এটাই আমার আহ্বান

আপডেট : ১১ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৫৯ পিএম

সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা ও জাতীয় পার্টি চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, “বর্তমানে দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা খুব একটা ভালো না। গ্রামগঞ্জের মানুষ অত্যান্ত কষ্টে দিনযাপন করছে। আমাদের সবার দায়িত্ব যারা সচ্ছল আছেন, তারা অসচ্ছল মানুষকে সহায়তা করা।”

বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) রংপুর নগরীর কালেক্টরেট ঈদগাহ মাঠে ঈদের নামাজ পড়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এসব কথা বলেন।

জাপা চেয়ারম্যান বলেন, “সবাই মিলে যাতে ঈদের আনন্দ নিজেদের মধ্যে ভাগ করে নিতে পারি, এটাই আমার আহ্বান।” এ সময় তিনি দেশবাসীকে ঈদের শুভেচ্ছা জানান।

জিএম কাদের বলেন, “দেশের মানুষ বিভিন্নভাবে নির্যাতিত হচ্ছে। সারের দাম বিশ্ববাজারে অর্ধেকে নেমে আসার পরেও সরকার কোভিডের অজুহাতে সারের দাম দ্বিগুণ করেছিল, এখনও তা কমানো হয়নি। ফলশ্রুতিতে ফসল উৎপাদনে খরচ বাড়ছে কিন্তু সেই হারে উৎপাদিত ফসলের ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে না কৃষক।”

শহরের মানুষকে অনেক বেশি দামে জিনিসপত্র কিনতে হচ্ছে উল্লেখ করে বিরোধীদলীয় নেতা বলেন, “একটা সিন্ডিকেট চক্র দাম বাড়িয়ে নিজেদের পকেট ভারি করছে। কিন্তু প্রকৃত কৃষকরা ন্যায্য মূল্য পাচ্ছে না।”

উপজেলা নির্বাচন প্রসঙ্গে জিএম কাদের বলেন, “আসন্ন উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে জাতীয় পার্টি তাদের দলীয় প্রতীক লাঙ্গল নিয়েই নির্বাচনে অংশ নেবে। আওয়ামী লীগ নিজেরাই নির্বাচনে দলীয় প্রতীক ব্যাবহারের আইন করেছিল। এবার দলীয় কোন্দলের কারণে দলীয় প্রতীক ব্যবহার করবে না। তবে নির্বাচনে ভোটারদের উপস্থিতি স্বাভাবিক হবে বলে মনে করি না। সরকারের  উচিত অংশগ্রহণমূলক নির্বাচনের ব্যবস্থা করা। ৩-৪ জন করে প্রার্থী দিলে নির্বাচন ভালো হয়না। সব রাজনৈতিক দল নির্বাচনে অংশ না নিলে সে নির্বাচনকে ভালো বলাও যায় না।”ৱ

এ সময় মহানগর জাপার সাধারণ সম্পাদক এসএম ইয়াসিরসহ জেলা ও মহানগর জাপার নেতারা উপস্থিত ছিলেন। 

লিয়াকত আলী বাদল

About

Popular Links