Monday, May 27, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ব্রাজিলের সামনে ভীত না কোরিয়া, ধুন্ধুমার লড়াইয়ের আভাস

সোমবার (৫ ডিসেম্বর) কাতারের রাজধানী দোহার ৯৭৪ স্টেডিয়ামে সেলেসাওদের বিরুদ্ধে মাঠে নামবে কোরিয়ানরা

আপডেট : ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৯:১৪ পিএম

কাতার বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিপক্ষ হট ফেবারিট। 

সোমবার (৫ ডিসেম্বর) কাতারের রাজধানী দোহার ৯৭৪ স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ সময় দিবাগত রাত ১টায় সেলেসাওদের বিরুদ্ধে মাঠে নামবে কোরিয়ানরা।

ম্যাচটিতে পাঁচবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল নিঃসন্দেহে ফেবারিট। স্বাভাবিকভাবেই ব্রাজিলিয়ানদের ওপর থাকবে ফেবারিট হওয়ার চাপ। অন্যদিকে, সেলসাওদের বিপক্ষে দক্ষিণ কোরিয়ার সামনে তাই হারানোর কিছু নেই। নির্ভার কোরিয়ানরা তাই তিতের শিষ্যদের হারানোর স্বপ্ন দেখছেন।

কাতার বিশ্বকাপে পরাশক্তি সাবেক চ্যাম্পিয়নদের অনেকেই অঘটনের স্বীকার হয়েছে। স্বয়ং ব্রাজিলই গ্রুপপর্বের শেষ ম্যাচে ক্যামেরুনের কাছে ০-১ গোলে হেরেছে। সেলেসাওদের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী আর্জেন্টিনাও ১-২ গোলে সৌদি আরবের কাছে হেরেছে। জাপান তো একই গ্রুপে থাকা স্পেন ও জার্মানিকে হারিয়ে রীতিমতো তাকই লাগিয়ে দিয়েছে। 

শেষ ষোলোর ম্যাচে ব্রাজিলকে হারিয়ে এবারের বিশ্বকাপে আরেকটি অঘটনের জন্ম দেওয়ার স্বপ্ন দেখছে দক্ষিণ কোরিয়া। বিশ্বকাপের মঞ্চে অবশ্য এশিয়ান টাইগারদের জন্ম দেওয়া অঘটনের সংখ্যা কম না। ২০১৮ বিশ্বকাপেই তৎকালীন ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়ন জার্মানিকে হারিয়ে তাদের বিদায়ঘণ্টা বাজিয়ে দিয়েছিল এশিয়ান দেশটি। ২০০২ বিশ্বকাপে একমাত্র এশিয়ান দেশ হিসেবে সেমিফাইনাল খেলার কীর্তি গড়ার পথে ইতালি ও স্পেনকে হারিয়েছিল কোরিয়ানরা।

বিশ্বকাপের সফলতম দল ব্রাজিলের মুখোমুখি হয়েও তাই ভয় পাচ্ছে না দক্ষিণ কোরিয়া। দলটির অধিনায়ক কিম জিন-সু বলেন, “প্রতিটি ম্যাচ, প্রতিটি মিনিট খুবই মূল্যবান। পুরো দলের মনোবল দারুণ, দলীয় সমন্বয়ও দুর্দান্ত। আমরা আরও এগিয়ে যেতে চাই এবং জয়ের জন্য আমরা সবাই উন্মুখ।”

কাতার বিশ্বকাপের আগে দক্ষিণ কোরিয়া সর্বশেষ গ্রুপপর্ব পেরিয়েছিল ২০১০ বিশ্বকাপে। ব্রাজিলের বিপক্ষে ম্যাচটিকে সামনে রেখে কোরিয়ান অধিনায়ক বলেন, “ম্যাচটি অবশ্যই খুব চ্যালেঞ্জিং হবে। আমরা সবাইকে দেখাতে চাই যে, আমরা কি পারি এবং কিসের জন্য আমরা ১২ বছর ধরে অপেক্ষা করছিলাম। আমাদের লড়াইয়ের মানসিকতা গুরুত্বপূর্ণ হবে। দলের জন্য আমাদের আত্মত্যাগ করতে হবে।”

দক্ষিণ কোরিয়ার কোচ পাওলো বেন্তোর কণ্ঠেও ব্রাজিলকে হারিয়ে দেওয়ার সুর। তিনি বলেন, “তাদের (ব্রাজিল) দলে বিশ্বমানের খেলোয়াড় রয়েছে। তবে আমরা তাদের মুখোমুখি হতে ভয় পাচ্ছি না। কারণ আমাদের দলেও বিশ্বমানের খেলোয়াড় আছে।”

তিনি আরও বলেন, “এক ম্যাচকে তো আর টুর্নামেন্ট বলা যাবে না। আমাদের সামনেও সুযোগ আছে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হলো আমরা দেখাতে চাই যে, আমরা জিততে চাই, প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে চাই এবং শেষ বাঁশির আগ পর্যন্ত লড়ে যেতে চাই।”

About

Popular Links