Friday, May 31, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

অস্ট্রেলিয়ার কাছে বড় পরাজয় বাংলাদেশের

  • নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশ করে ৩০৮ রান
  • ৩২ বল হাতে রেখে ৮ উইকেটের বড় জয় তুলে নেয় অস্ট্রেলিয়া
আপডেট : ১১ নভেম্বর ২০২৩, ০৭:০৬ পিএম

বিতর্ক সঙ্গী করে ভারতে বিশ্বকাপ মিশনে গিয়েছিল বাংলাদেশ। শুরুটাও ছিল ভীষণ ঝলমলে। কিন্তু এরপরের গল্প পুরোটাই ব্যর্থতার। নেদাল্যান্ডসের মতো দলের কাছে পরাজয় থেকে শুরু করে বিশ্বকাপে বাজে পারফরম্যান্সের জন্য সমালোচিত শ্রীলঙ্কা, ইংল্যান্ডের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি টাইগাররা। খারাপের চেয়েও খারাপ খেলতেই যেন ভারতের এই সফর। যার শেষটায় অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে লড়াইয়ের আভাস দিয়েও লজ্জার পরাজয় দেখল ক্রিকেট ভক্তরা। আর এর মধ্য দিয়ে শেষ হলো সাকিব বাহিনীর বিশ্বকাপ যাত্রা। বিশ্বকাপ খেলার প্রথম রাউন্ড শেষে বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা এখন শুধুই দর্শক।

শনিবার (১১ নভেম্বর) পুনেতে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথমে ব্যাট করতে নামে বাংলাদেশ। শুরুটা ভালোই ছিল। তানজিদ হাসান ও লিটন দাস জুটি ৭৬ রান করে। চ্যাম্পিয়নস ট্রফিতে সুযোগ পেতে তারা শুরু থেকেই মারকুটে ব্যাট করতে থাকেন। তানজিদ হাসান করেন ৩৬ রান আর লিটন করেন ৩৬। সুবিধা পাচ্ছিলেন উইকেট থেকেও। বোঝাই যাচ্ছিল, বড় সংগ্রহ পাবে বাংলাদেশ।

অধিনায়ক শান্ত এই ম্যাচে ৪৫ রান করেন। তবে দ্রুত রান তুলতে গিয়ে রান আউট হন। তৌহিদ হৃদয় ৭৯ বলে ৭৪ রানের ইনিংস খেলেন। মাহমুদুল্লাহ করেন ৩২ রান। টপ ও মিডল অর্ডারে কেউই আর খুব বেশি সময় ক্রিজে থাকতে পারেননি।

নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশ করে ৩০৮ রান।

অস্ট্রেলিয়া দলে এদিন বিশ্রামে ছিলেন ম্যাক্সওয়েল ও স্টার্ক। বাকিরা প্রথম দিকে রান দিলেও হতাশ করেননি। বিশ্বকাপ অভিষেক ম্যাচে অ্যাবট নেন দুই উইকেট। জাম্পাও নেন দুটি উইকেট। একটি উইকেট নেন মার্কোস স্টোইনিস।

জবাবে ব্যাট করতে নামে অস্ট্রেলিয়া। তবে মাত্র ১২ রানেই প্রথম উইকেট হারায় তারা। ট্রাভিস হেড করেন ১০ রান। ডেভিড ওয়ার্নার এই ম্যাচে পান ৫৩ রান।

এরপর ম্যাচের হাল ধরেন মিচেল মার্শ ও স্টিভ স্মিথ। স্মিথ খেলেছেন ম্য়াক্সওয়েলের জায়গায়। বে ম্যাক্সওয়েলের অভাব বোধ করতে দেননি মার্শ। তিনি ১৭৭ রানের ইনিংস খেলেন। আর স্মিথ করেন ৬৩। এই জুটি ১৭৫ রান করে।

অস্ট্রেলিয়ার ব্যাটারদের সামনে অসহায় হয়ে পড়ে বাংলাদেশের বোলাররা। তাদের বল যেন ছেঁড়া জালের মতো আচরণ করতে থাকে। মারকুটে ব্যাটিংয়ে দ্রুতই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় অজিরা। ৩২ বল হাতে রেখে ৮ উইকেটের বড় জয় তুলে নেয় তারা।

বাংলাদেশের হয়ে একটি করে উইকেট নেন তাসকিন ও মুস্তাফিজুর রহমান।

About

Popular Links