Monday, May 20, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

অনূর্ধ্ব-১৯: পাকিস্তানকে হারিয়ে বাংলাদেশের জয়

  • ত্রিদেশীয় সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে ২০ ওভারে চার উইকেট হারিয়ে বাংলাদেশ দল সংগ্রহ করে ১৩৬ রান
  • পাকিস্তান দল ২০ ওভারে সাত উইকেট হারিয়ে মাত্র ১০০ রান সংগ্রহ করতে পারে
আপডেট : ২৭ জানুয়ারি ২০২৪, ০৫:৩৩ পিএম

ঘরের মাঠে ত্রিদেশীয় সিরিজে টানা জয় ধরে রেখেছে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ নারী দল। দ্বিতীয় ম্যাচে ৩৬ রানে পাকিস্তানকে হারিয়েছে বাংলাদেশ। আগে ব্যাটিং করে ১৩৬ রানের পুঁজি গড়ার পর, পাকিস্তানকে তারা মাত্র ১০০ রানে আটকে দিয়েছে।

শনিবার (২৭ জানুয়ারি) কক্সবাজার শেখ কামাল আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে আগে ব্যাটিং করে স্বাগতিক বাংলাদেশ। নির্ধারিত ২০ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে তারা ১৩৬ রান সংগ্রহ করে। যেখানে যুব টাইগ্রেসদের হয়ে সর্বোচ্চ ২৪ বলে ৩২ রান করেছেন অধিনায়ক সুমাইয়া আক্তার। এছাড়া আরবিন তানি ৩১, সুমাইয়া আক্তার সুবর্না ২৪ ও রাবেয়া খান ২৩ রান করেন।

জবাবে ব্যাট করা পাকিস্তানের হয়ে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত ৩৯ রান আসে ওপেনার আয়মান ফাতিমার ব্যাটে। আরেক ওপেনার সামিয়া আফসার ২৫ রান করেন। এছাড়া বলার মতো কেউ রান পাননি পাকিস্তানের। বাংলাদেশের হয়ে সর্বোচ্চ ২ উইকেট করেন আফিয়া আসিমা ইরা। এছাড়া রাবেয়া খান ও ফারিয়া আক্তার একটি করে শিকার ধরেন। ২৩ ও ১ উইকেট নিয়ে ম্যাচসেরা হয়েছেন জাতীয় দলের স্পিনার রাবেয়া।

এর আগে বাংলাদেশের রানতাড়ায় শুরুতে দারুণ ব্যাট করেন পাকিস্তানের ওপেনাররা। বলতে গেলে পুরো ইনিংসে তারা দুজনই ভালো পারফর্ম করেছেন। ফাতিমা-সামিয়ার ৫১ রানের ওপেনিং জুটি ভাঙার পর আর কোনো জুটি গড়তে পারেননি মিডল অর্ডার ব্যাটাররা। ফলে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারানো দলটি নির্ধারিত ওভার শেষে ৭ উইকেট হারিয়ে সর্বসাকুল্যে তোলে ১০০ রান।

প্রথম ইনিংসে শুরুটা ভালো ছিল না বাংলাদেশের। ওপেনার ইভা মাত্র ৬ রানে সাজঘরে ফিরলে ভাঙে ২৪ রানের উদ্বোধনী জুটি। আরেক ওপেনার সুমাইয়া আক্তার সুবর্ণা ৩৩ বলে করেন ২৪ রান। তিনে নেমে তার সঙ্গে জুটি বাধা আরভিন তানিও দারুণ ব্যাটিং করেছেন। ৩ চারের সাহায্যে ৩০ বলে করেছেন ৩১ রান। শেষে ঝোড়ো ব্যাটিং করেছেন অধিনায়ক সুমাইয়া আক্তার। সাজঘরে ফেরার আগে অধিনায়কের ব্যাট থেকে আসে ২৪ বলে ৩২ রান। তাছাড়া ২৩ বলে অপরাজিত ২৩ রান করেন রাবেয়া।

পাকিস্তানের হয়ে ২ উইকেট নেন আনোশা নাসির। এছাড়া অধিনায়ক মাহনুর আফতাব ও মাহাম আনিস একটি করে উইকেট নেন।

 

About

Popular Links