• রবিবার, এপ্রিল ০৫, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:২৮ রাত

সাকিব : আঙুলটা পুরোপুরি আর ঠিক হবে না

  • প্রকাশিত ০১:০৩ দুপুর অক্টোবর ৬, ২০১৮
ফাইল ছবি
ফাইল ছবি

চলতি বছরের জানুয়ারিতে ত্রিদেশীয় সিরিজে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ফাইনাল ম্যাচে আঙুলে আঘাত পান সাকিব। হাতের ওই ইনজুরি নিয়েই একের পর এক আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন তিনি। এমন পরিস্থিতিতে বিসিবি কেন সাকিব দিলে খেলানো হচ্ছে তা নিয়ে বেশ সমালোচনার সৃষ্টি হয়।

কয়েকমাস ধরেই হাতের আঙুলের ইনজুরিতে ভুগছেন সাকিব আল হাসান। সম্প্রতি সেই ইনজুরির জের ধরেই এশিয়া কাপ শেষ না করেই দেশে ফিরে আসতে হয় তাকে। ভর্তি হন রাজধানীর অ্যাপোলো হাসপাতালে। পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য সাকিবকে অস্ট্রেলিয়া পাঠানোর সিদ্ধান্ত নেয় বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। 

গতকাল শুক্রবার হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে অস্ট্রেলিয়ার উদ্দেশে রওনা দেওয়ার আগে সাংবাদিকদের সঙ্গে নিজের ইনজুরির বিষয়ে কথা বলেন সাকিব। জানান, ইনফেকশন হয়ে যাওয়ার কারণে আঙুলটা পুরোপুরি আর কখনই ঠিক হবে না।  

সাকিব বলেন, ‘ইনফেকশটাই আমার সবচেয়ে বড় টেনশনের জায়গাটা। কারণ ওটা যতক্ষণ না পর্যন্ত জিরো পারসেন্টে আসবে ততক্ষণ কোনো সার্জন হাত দিবে না। কারণ, ওটায় হাত দিলে পুরা বোনে (হাড়) চলে যাবে। বোনে চলে গেলে পুরা হাত নষ্ট। সো, এখন মেইন পয়েন্টটা হচ্ছে যে, কীভাবে আমার ইনফেকশনটা সারানো যায়। তবে আমার আঙুলটা আর কখনো ১০০ পার্সেন্ট ইয়ে হবে না।’ 

‘কারণ এটা হচ্চে যে, হাড্ডিটা যেটা, এটা হচ্ছে নরম হাড্ডি। এটা কখনো আর জোড়া লাগার সম্ভাবন নাই, কিংবা ইয়ে হওয়ার ইয়ে নাই। পুরাপুরি ঠিক হবে না। বাট সার্জারিটা হবে এমন একটা ইসে যে, ওরা এমন একটা সিচুয়েশনে এনে দিবে হাতটা যেখান থেকে আমি ব্যাটটা ভালোভাবে ধরতে পারবো। ক্রিকেট খেলাটা চালাতে পারবো।’

চলতি বছরের জানুয়ারিতে ত্রিদেশীয় সিরিজে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে ফাইনাল ম্যাচে আঙুলে আঘাত পান সাকিব। হাতের ওই ইনজুরি নিয়েই একের পর এক আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেছেন তিনি। এমন পরিস্থিতিতে বিসিবি কেন সাকিবকে দিয়ে খেলানো হচ্ছে তা নিয়ে বেশ সমালোচনার সৃষ্টি হয়।