• মঙ্গলবার, জানুয়ারী ২১, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ০৪:৪৯ বিকেল

মিরাজের ছোবলে নীল জিম্বাবুইয়ান শিবির

  • প্রকাশিত ১০:৪৬ সকাল নভেম্বর ১৩, ২০১৮
তাইজুল ইসলাম
ছবি : মো: মানিক/ ঢাকা ট্রিবিউন

মিরপরে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে তৃতীয় দিনের শেষ সেশনের খেলা চলছে। স্পিনারদের যাদুকরী বোলিংয়ে চালকের আসন ধরে রেখেছে বাংলাদেশ। ফলো অন এড়াতে প্রাণপণ লড়ে যাচ্ছে জিম্বাবুয়ের ব্যাটসম্যান

মিরাজের ছোবলে নীল জিম্বাবুইয়ান শিবির   

১৯৪ বল খেলে ১০ বাউন্ডারি হাঁকিয়ে ১১০ রান করে বিপদের বার্তা দেয়া টেইলরকে ফেরালেন মিরাজ। হাফভলি বলে হাটু গেঁড়ে লেগের সীমানা দিয়ে উড়িয়ে মারলে তাইজুল ইসলামের অসাধারণ পারদর্শীতায় তালুবন্দী হোন টেইলর। 

২ বল পরেই সদ্য ২২ গজে আসা মাভুটাকেও ঘূর্ণির ফাঁদে ফেলে স্লিপে থাকা আরিফুল হকের ক্যাচে পরিণত করেছেন এই অলরাউন্ড স্পিনার। 

ফলো অন এড়াতে মাত্র ২৯ রান প্রয়োজন সফরকারীদের। ইনিংসের ১০১ ওভার শেষে ৮ উইকেট হারিয়ে ২৯৪ রান জিম্বাবুয়ের। ক্রিজে আছেন জার্ভিস ও চাকাভা।

আগুনের ফুলকি নেভালেন আরিফুল, টেইলরের শতক

৩য় দিনের ৩য় সেশনে বেশ শক্ত প্রতিরোধ গড়েছে জিম্বাবুয়ে। ৬ষ্ট উইকেট জুটিতে টেইলরের সাথে ১৩৯ রানের পার্টনারশিপ গড়ে এই দুই জিম্বাবুইয়ান ব্যাটসম্যান। নিয়মিত বোলাররা জুটি ভাঙতে ব্যর্থ হলে অনিয়মিত মিডিয়াম পেসার আরিফুল হকের হাতে বল তুলে দেন অধিনায়ক। নিজের প্রথম ওভারেই ৮৩ রান করা পিটার মুরকে এলবিডব্লিউ’য়ের ফাঁদে ফেলেন এই ডানহাতি মিডিয়াম পেসার। 

তবে সঙ্গী হারানোর ২ ওভার পরেই ইনিংসের ৯৬ তম ওভারে নিজের শতক তুলে নেন টেইলর। 

দুইশত রানের মাইলফলকে জিম্বাবুয়ে

ইনিংসের ৭৪ ওভারে দলীয় ২০০ রান পূরণ করল জিম্বাবুয়ে। 

টেইলরের অর্ধশতক, ঘুরে দাঁড়ানোর চেষ্টায় জিম্বাবুয়ে

ফলো অন এড়াতে আরও ১২৮ রান করতে হবে সফরকারীদের।ইনিংসের ৭৩ ওভার শেষে ৫ উইকেট হারিয়ে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ১৯৫ রান।

এর আগে, ১৩১ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে খাদের কিণারে পৌঁছানো জিম্বাবুয়ের হয়ে টিকে থাকার লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন টেইলর ও মুর। ৬৮ তম ওভারে নিজের অর্ধশতক তুলে নেন টেইলর। অপরাজিত আছেন ৫৯ রানে। অন্যপ্রান্তে, ওয়ানডে মেজাজে ব্যাটিং করে ৫৮ বলে ৪৪ রান তুলেছেন মুর।  

৪ উইকেট শিকার করলেন তাইজুল

সামর্থ্যের বিচারে শন উইলিয়ামস-সিকান্দার রাজা হয়ে উঠতে পারতেন ভয়ঙ্কর। তবে সে সুযোগ দিলেন না তাইজুল। ইনিংসে নিজের ৩য় শিকার হিসেবে ২৮ বলে ১১ রান করা উইলিয়ামসের স্টাম্প ভেঙেছেন এই স্পিনার। ৪ ওভার পর শূণ্য রানে সিকান্দার রাজাকেও কারও সাহায্য ছাড়াই সাজঘরের পথ দেখান তাইজুল। ৫৭ ওভার শেষে ১৩১ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে জিম্বাবুয়ের হয়ে ক্রিজে আছেন টেইলর ও মুর।

মধ্যাহ্ন বিরতি শেষে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছেন উইলিয়ামস ও টেইলর

৩য় দিনের ২য় সেশনে টাইগার স্পিন ঘূর্ণির বিপক্ষে লড়াই ধরে রেখেছে জিম্বাবুইয়ের দুই মিডল-অর্ডার ব্যাটসম্যান উইলিয়ামস-টেইলর। ৪৯ বলে ২৬ রান তুলে টেস্টেও স্বভাবসুলভ আক্রমণাত্মক ব্যাটিং চালিয়ে যাচ্ছেন টেইলর। অপরপ্রান্তে, ২১ বলে ৮ রান নিয়ে অপরাজিত শন উইলিয়ামস। ৪৯ ওভার শেষে ৩ উইকেট হারিয়ে দলীয় ১২০ রানে জিম্বাবুয়ে।

মধ্যাহ্ন বিরতির আগেই দলীয় শতক জিম্বাবুয়ের

টাইগারদের শাণিত বোলিংয়ে চাপের মধ্যেও নিজের অর্ধশতক পূর্ণ করেন ওপেনার ব্রায়ান চারি। তবে মিরাজ ঘুর্ণির কবলে পড়ে ইনিংস আর বড় করতে পারলেননা জিম্বাবুয়ের এই ব্যাটসম্যান। ইনিংসের ৪২ তম ওভারে প্যাডে লেগে লাফিয়ে হ্যান্ডগ্লাভস ছুঁয়ে আসা বল তালুবন্দী করেন মুমিনুল হক। মাঠের আম্পায়ার 'নট-আউট'র সিদ্ধান্ত দিলেও 'ডিসিশন রিভিউ'য়ে সফলতা নিয়ে আবারও সফরকারীদের কোণঠাসা করেন টাইগার অধিনায়ক। 

পরে ৪৪ ওভারে জিম্বাবুয়ে দলীয় শতক পূর্ণ করলে মধ্যাহ্ন বিরতির ঘোষণা দেন আম্পায়ার। ৩ উইকেট হারিয়ে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ১০০ রান।

দিনের শুরুতেই চাপে জিম্বাবুয়ে, ২য় উইকেটের পতন

দিনের শুরুতে মুস্তাফিজ আর খালেদের টানা তিন মেইডেনে শুর থেকেই চাপে পড়ে সফরকারীরা। পরে দিনের ১১তম ওভারে দলীয় ৪০ রানে ২য় উইকেট হারায় জিম্বাবুয়ে। ইনিংসে তাইজুলের ২য় শিকার তিরিপানো মাত্র ৮ রান করেই ফিরেছেন প্যাভিলনে। ২ উইকেট হারিয়ে জিম্বাবুয়ের সংগ্রহ ৫৬ রান। 

এর আগে, মুশফিকুর রহিমের রেকর্ড গড়া ডবল সেঞ্চুরি আর মিরাজের হাফ-সেঞ্চুরিতে ৩ উইকেট হাতে থাকতেই ৫২২ রানে ইনিংস ঘোষণা করেন টাইগার অধিনায়ক মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ। 

২য় দিনের শেষ সেশনে ১ম ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে দলীয় ২০ রানেই ওপেনার মাসাকাদজাকে আউট করে দিনের শেষটা ভালো করেন তাইজুল ইসলাম।  

উল্লেখ্য যে, মিরপরে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে সিরিজের দ্বিতীয় ও শেষ টেস্টে তৃতীয় দিনের খেলা মাঠে গড়িয়েছে।টাইগারদের নিয়ন্ত্রিত বোলিংয়ে রক্ষণাত্মক কায়দায় ব্যাটিং করছেন জিম্বাবুইয়ান ওপেনার ব্রায়ান চারি ও আরেক টপঅর্ডার ডোনাল্ড তিরিপানো।