• বুধবার, নভেম্বর ২০, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১১:০৯ রাত

অভিষেক টেস্টে সর্বকনিষ্ঠ ৫ উইকেট শিকারী এবং সেঞ্চুরিয়ানের রেকর্ড এখন বাংলাদেশের

  • প্রকাশিত ১০:৪৯ রাত নভেম্বর ২৩, ২০১৮
নাঈম হাসান
ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে ১ম টেস্টের ২য় দিনে বল করছেন অভিষিক্ত নাঈম হাসান। ছবি: মোঃ মানিক/ ঢাকা ট্রিবিউন।

নাঈমের আগে এই রেকর্ডটি ছিল অস্ট্রেলিয়ার প্যাট কামিনসের, ২০১১ সালে তিনি দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট দখল করেছিলেন তিনি

১৭ বছর বয়সী বাংলাদেশী অফ স্পিনার নাঈম হাসান সর্বকনিষ্ঠ ক্রিকেটার হিসেবে অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট শিকারের কৃতিত্ব অর্জন করেছেন।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তার অভিষেক টেস্টেই নাঈম প্রথম ইনিংসে তিনি ১৪ ওভার বল করে ২টি মেইডেন সহ ৬৪ রান খরচ  করে ৫টি উইকেট শিকার করেছেন।

নাঈমের আগে এই রেকর্ডটি ছিল অস্ট্রেলিয়ার প্যাট কামিনসের। ২০১১ সালে তিনি দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট দখল করেছিলেন তিনি। ঐ সময় কামিনসের বয়স ছিল ১৮ বছর ১৯৩ দিন।

নাঈমর বয়স এখন ১৭ বছর ৩৫৫ দিন। এই হিসাবে তিনিই এখন অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট শিকারী সর্বকনিষ্ঠ ক্রিকেটার।

উল্লেখ্য, অভিষেক টেস্টে সেঞ্চুরি হাঁকানো সর্বকনিষ্ঠ ক্রিকেটারের রেকর্ডটিও বাংলাদেশের। ২০০১ সালে শ্রীলঙ্কার কলম্বোতে অভিষেক টেস্টেই সেঞ্চুরি করেছিলেন মোঃ আশরাফুল। ঐ সময় তার বয়স ছিল ১৭ বছর ৬১ দিন। 

অভিষেক টেস্টে ৫ উইকেট শিকার করার পর ম্যাচ বল হাতে নাঈম হাসান। ছবি: মোঃ মানিক/ ঢাকা ট্রিবিউন

এর ফলে অভিষেক টেস্টে সর্বকনিষ্ঠ সেঞ্চুরিয়ান এবং ৫ উইকেট শিকারীর রেকর্ড এখন বাংলাদেশের।

স্কোর-

বাংলাদেশ ১ম ইনিংস: ৯২.৪ ওভারে ৩২৪ ( আগের দিন ৩১৫/৮)(নাঈম ২৬, তাইজুল ৩৯*, মুস্তাফিজ ০;  রোচ ১৭-২-৬৩-১, গ্যাব্রিয়েল ২০-২-৭০-৪, চেইস ১১-০-৪২-০, ওয়ারিক্যান ২১.৪-৬-৬২-৪, বিশু ১৫-০-৬০-১, ব্র্যাথওয়েট ৮-১-১৯-০)।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ১ম ইনিংস: ৬৪ ওভারে ২৪৬ (ব্র্যাথওয়েট ১৩, পাওয়েল ১৪, হোপ ১, আমব্রিস ১৯, চেইস ৩১, হেটমায়ার ৬৩, ডাওরিচ ৬৩, বিশু ৭, রোচ ২, ওয়ারিক্যান ১২, গ্যাব্রিয়েল ৬*; মুস্তাফিজ ২-১-৪-০, মিরাজ ১৫-০-৬৭-১, তাইজুল ২০-৩-৫১-১, সাকিব ১১-৩-৪৩-৩, নাঈম ১৪-২-৬১-৫, মাহমুদউল্লাহ ২-০-৭-০)।

বাংলাদেশ ২য় ইনিংস: ১৭ ওভারে ৫৫/৫ (ইমরুল ২, সৌম্য ১১, মুমিনুল ১২, মিঠুন ১৭, সাকিব ১, মুশফিক ১১*, মিরাজ ০*; রোচ ১-০-১১-০, ওয়ারিক্যান ৮-০-২২-২, চেইস ৫-১-১৬-২, বিশু ৩-০-৫-১)।