• শনিবার, এপ্রিল ০৪, ২০২০
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৪৯ সকাল

তিন ধাপে পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে টাইগাররা

  • প্রকাশিত ০৯:০৯ রাত জানুয়ারী ১৪, ২০২০
বিসিবি-পিসিবি

২০০৯ সালের মার্চে শ্রীলঙ্কার টিম বাসের ওপর সন্ত্রাসী হামলার পর থেকে পাকিস্তানে অন্য দেশের ক্রিকেটাররা খেলতে অনাগ্রহী। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড তখন থেকে নিরপেক্ষ ভেন্যু হিসেবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে খেলার আয়োজন করে আসছে

তিনটি টি-টোয়েন্টি, দুটি টেস্ট এবং একটি ওয়ানডে ম্যাচ খেলতে পাকিস্তান সফরে যাচ্ছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। তবে সফর অনুষ্ঠিত হবে তিন ধাপে।

পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের ওয়েবসাইটের তথ্যানুযায়ী, মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) পিসিবি চেয়ারম্যান ও সিইও'র সঙ্গে এ বিষয়ে ঐক্যমতে পৌঁছেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী- লাহোরে ২৪ থেকে ২৭ জানুয়ারি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ তিনটি অনুষ্ঠিত হবে। দ্বিতীয় ধাপে ৭ থেকে ১১ ফেব্রুয়ারি রাওয়ালপিন্ডিতে প্রথম টেস্ট অনুষ্ঠিত হবে।

এপ্রিলে একমাত্র ওয়ানডে এবং দ্বিতীয় টেস্ট খেলতে ফের পাকিস্তান যাবে বাংলাদেশ। করাচিতে ওয়ানডে এবং দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হবে। ৩ এপ্রিল করাচিতে একমাত্র ওয়ানডে ম্যাচ এবং পরে ৫-৯ এপ্রিল দ্বিতীয় টেস্ট অনুষ্ঠিত হবে।

প্রসঙ্গত, বর্তমানে সংযুক্ত আরব আমিরাত সফরে রয়েছেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। পিসিবির বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সেখানে সিরিজের ভাগ্য নিয়ে পিসিবি চেয়ারম্যান এহসান মানির সঙ্গে বৈঠক করেন তিনি। মঙ্গলবার বিকেলে দুবাইয়ে অনুষ্ঠিত বৈঠকে মধ্যস্থতা করেন আইসিসি চেয়ারম্যান শশাংক মনোহর।

এর আগে গত ১২ জানুয়ারি বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন বলেন, বাংলাদেশ শুধু তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে। টেস্ট খেলবে না।

তারও আগে গত ৭ জানুয়ারি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বার্তা সংস্থা ইউএনবি জানায়, অধিকাংশ ক্রিকেটার পাকিস্তান সফরে যেতে আগ্রহী নন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ওই কর্মকর্তা বলেন, ‘‘বোর্ড এই সিরিজ নিয়ে সন্তুষ্ট নয়। এখনো সিরিজের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। সিরিজ নিয়ে অধিকাংশ ক্রিকেটার তাদের অনাগ্রহের কথা বোর্ড সভাপতিকে জানিয়েছে।’’

২০০৯ সালের মার্চে শ্রীলঙ্কার টিম বাসের ওপর সন্ত্রাসী হামলার পর থেকে পাকিস্তানে অন্য দেশের ক্রিকেটাররা খেলতে অনাগ্রহী। পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড তখন থেকে নিরপেক্ষ ভেন্যু হিসেবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে খেলার আয়োজন করে আসছে।