• বুধবার, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৮
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৩ রাত

নিরাপদ অনলাইন ব্যবহারে প্রশিক্ষণ দেবে সরকার

  • প্রকাশিত ১১:২০ সকাল আগস্ট ১৬, ২০১৮
অনলাইন ব্যবহারে প্রশিক্ষণ দেবে সরকার
ফাইল ফটো ঢাকা ট্রিবিউন

‘মানুষ অনলাইন ব্যবহারে একদমই সচেতন নন। অনলাইনে কী করা উচিত, কী করা উচিত নয়, অনলাইনকে কীভাবে জঞ্জালমুক্ত রাখা যায় এসব বিষয়ে একদমই সচেতন নন তারা’।

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার মতে, ‘মানুষ অনলাইন ব্যবহারে একদমই সচেতন নন। অনলাইনে কী করা উচিত, কী করা উচিত নয়, অনলাইনকে কীভাবে জঞ্জালমুক্ত রাখা যায় এসব বিষয়ে একদমই সচেতন নন তারা। আমাদের কাজটি মূলত সচেতনতা তৈরির।’ 

মন্ত্রী মনে করেন, ‘শুধু সচেতন করলেই হবে না, তাদের (ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের) প্রযুক্তিতে সাক্ষর করে তুলতে হবে। এজন্যই বই তৈরি করা হয়েছে। নির্দেশনা মেনে চললে ব্যক্তি, সমাজ ও রাষ্ট্র নিরাপদ থাকবে।’

সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) বিভাগে সংশ্লিষ্টরা সূত্র মতে, আইসিটি বিভাগ এরই মধ্যে প্রশিক্ষণ ম্যানুয়াল হিসেবে একটি পুস্তিকা তৈরি করেছে। ওই পুস্তিকায় প্রশিক্ষণের যাবতীয় বিষয়া যুক্ত করা হয়েছে। পুস্তিকাটি অনুসরণ করলে অনলাইনে নিরাপদ থাকা যাবে বলে অভিমত দিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।   

জানা গেছে, আইসিটি বিভাগে অন্যান্য প্রশিক্ষণের পাশাপাশি এখন থেকে ইন্টারনেট ব্যবহার এবং সেইসঙ্গে এর সতর্কতা বিষয়ক প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে। আইসিটি বিভাগ এই বিষয়ের প্রশিক্ষণ বাধ্যতামূলক করেছে। 

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার মনে করেন, ‘প্রযুক্তিকে রোধ করা যাবে না। রোধ করলে পাল্টা অ্যাকশন হবে। যা সমাজ, রাষ্ট্রের জন্য কল্যাণ বয়ে আনবে না। তাই কল্যাণকর বিষয়ের জন্যই তরুণদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।’ 

তিনি আরও জানান, ‘প্রশিক্ষণে যারা অংশ নেয় তাদের মধ্যে শতভাগই হচ্ছে তরুণ। এই তরুণরা যাতে বিপথে না যায়, অনলাইনকে ভাগাড় না বানায়, ঝুঁকিপূর্ণ করে না তোলে— সেজন্য প্রশিক্ষণের এই উদ্যোগ।’