• বুধবার, সেপ্টেম্বর ২৬, ২০১৮
  • সর্বশেষ আপডেট : ০১:২৩ রাত

মহাকাশে লিফট পাঠাবে জাপান!

  • প্রকাশিত ১০:০০ রাত সেপ্টেম্বর ৩, ২০১৮
মহাকাশে লিফট পাঠাবে জাপান
মহাকাশে লিফট পাঠাবে জাপান। ছবি: সংগৃহীত

ঘন্টায় সর্বোচ্চ ২০০ কিলোমিটার বেগে ছুটতে পারবে লিফটটি।

মহাকাশে যেতে লিফট ব্যবহারের পরিকল্পনা করছে জাপান। স্পেস স্টেশনের সঙ্গে ভূপৃষ্ঠের যোগাযোগে ব্যবহৃত হবে এই লিফট, ঘন্টায় সর্বোচ্চ ২০০ কিলোমিটার বেগে ছুটে ভূপৃষ্ঠ থেকে মহাকাশ স্টেশন পৌঁছে দেবে লিফটটি। 

প্রযুক্তি সাইট সিনেটের বরাতে জানা গেছে, চলতি মাসেই লিফট তৈরির লক্ষ্যে পরীক্ষা চালাবে জাপানের গবেষক দল। পৃথিবী থেকে মহাকাশ কেন্দ্রে যাত্রী ও মালামাল পাঠাতে তৈরি হবে এই লিফটটি।

জাপানের শিজুকা ইউনিভার্সিটি ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের এক দল গবেষক বিষয়টি নিয়ে গবেষণা চালাবে। 

চলতি বছরের ১১ সেপ্টেম্বর ১০ মিটার দীর্ঘ কেবলের দুইপাশে যুক্ত ১০ সেন্টিমিটার আকারের দুইটি ক্ষুদ্র কিউবিক স্যাটেলাইট কাগোশিমা টানেগাশিমা স্পেস সেন্টার থেকে আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্রে পাঠানোর চেষ্টা করা হবে। কেবল দিয়ে ওঠানামা করানোর জন্য মোটরচালিত একটি কন্টেইনার লিফট গাড়ির মতো কাজ করবে এবং স্যাটেলাইটে যুক্ত ক্যামেরা দিয়ে পুরো পরীক্ষাটির ভিডিও ধারণ করা হবে বলে জানিয়েছে সিনেট।

এই প্রকল্পের প্রযুক্তিগত পরামর্শদাতা প্রতিষ্ঠান ওবায়াশি কর্পোরেশন একই ধরনের আরেকটি প্রকল্প নিয়ে কাজ করছে। ২০৫০ সালের মধ্যে প্রতিষ্ঠানটি একটি মহাকাশ লিফট সরবরাহের প্রত্যাশা করছে। মহাকাশে যাতায়াতের জন্য লিফট তৈরি করা সম্ভব হলে, এটি একদিকে যেমন খরচ বাঁচাবে। অন্যদিকে মহাকাশ ভ্রমণের ঝুঁকিও অনেকটাই কমাবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বর্তমানে শাটলের মাধ্যমে মহাকাশে প্রতি কেজি কার্গো পাঠাতে খরচ হয় প্রায় ২২ হাজার মার্কিন ডলার। কিন্তু, এই লিফট তৈরি করা সম্ভব হলে খরচ পড়বে মাত্র ২০০ ডলার।

গবেষকরা ধারণা করছেন, ঘন্টায় সর্বোচ্চ ২০০ কিলোমিটার বেগে ছুটতে পারবে লিফটটি। এই গতিতে ছুটতে পারলে আট দিনেই আন্তর্জাতিক মহাকাশ কেন্দ্রে পৌঁছে যাবে লিফটটি।