• বৃহস্পতিবার, মে ২৩, ২০১৯
  • সর্বশেষ আপডেট : ১০:৫৫ রাত

হ্যাকারদের নিয়ন্ত্রণে ২ কোটিরও বেশি পাসওয়ার্ড, ৭৭ কোটি ই-মেইল!

  • প্রকাশিত ০৬:৪১ সন্ধ্যা জানুয়ারী ১৮, ২০১৯
হ্যাকার
প্রতীকী ছবি: সংগৃহীত

কে জানে? হয়তো, এরই মধ্যে অজান্তে আপনার ই-মেইল অ্যাড্রেস আর খুব গোপন পাসওয়ার্ডগুলোও ফাঁস হয়ে গেছে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে থাকা কোটি কোটি হ্যাকার, স্প্যামারের কাছে

তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ক ওয়েবসাইটগুলোর সাম্প্রতিক এক প্রতিবেদন বলছে, অন্তত ২ কোটি ১০ লাখ অনলাইন অ্যাকাউন্টের পাসওয়ার্ড আর ৭৭ কোটি ২৯ লাখ ৪ হাজার ৯৯১টি ই-মেল অ্যাড্রেস ফাঁস হয়েছে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তের হাজার হাজার ডেটাবেজ থেকে। এর ফলে, অন্তত ২৭০ কোটি গোপনীয় রেকর্ড ইতোমধ্যে পৌঁছে গেছে হ্যাকার আর স্প্যামারদের হাতে। 

কে জানে? হয়তো, এরই মধ্যে অজান্তে আপনার ই-মেইল অ্যাড্রেস আর খুব গোপন পাসওয়ার্ডগুলোও ফাঁস হয়ে গেছে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে থাকা কোটি কোটি হ্যাকার, স্প্যামারের কাছে।

জানা যায়, ডেটাবেজগুলো ওই সব ই-মেইল অ্যাড্রেস আর পাসওয়ার্ড বর্জ্যের মতো ফেলে দিয়েছিল তথ্যপ্রযুক্তির একটি ‘ডাম্পিং গ্রাউন্ড’ কালেকশন #ওয়ান-এ। 

এই ঘটনা প্রথমে নজরে আসে তথ্য গবেষক ট্রয় হান্টের। যিনি ‘হ্যাভ আই বিন পন্‌ড’ নামে একটি ওয়েবসাইট চালান। এই ওয়েবসাইটে যে কোনও ই-মেল অ্যাড্রেস আর পাসওয়ার্ড পাঠানো হলে, তারা পরীক্ষানিরীক্ষা করে বলে দেয়, কোনও সময় কেউ সেই গোপন পাসওয়ার্ড জেনে ফেলে তা দিয়ে সেই ই-মেল অ্যাড্রেস খুলেছিল কি না। কত বার খুলেছিল। কোন জায়গা থেকে হ্যাকার, স্প্যামাররা জেনে ফেলা গোপন পাসওয়ার্ড দিয়ে সেই ই-মেল অ্যাড্রেসে ঢুকেছিল, কত তথ্য তারা চুরি করেছিল ইত্যাদি।

ট্রয় হান্ট তার ব্লগে লিখেছেন, ‘‘২ কোটি ১০ লাখ পাসওয়ার্ড আর ৭৭ কোটি ২৯ লাখ ৪ হাজার ৯৯১টি ই-মেল অ্যাড্রেস ফাঁস হয়েছে। ফলে, ফলে, অন্তত ২৭০ কোটি গোপনীয় রেকর্ড ইতোমধ্যে পৌঁছে গেছে হ্যাকার আর স্প্যামারদের হাতে।’’ 

হান্টের বক্তব্য সত্যি হলে বিভিন্ন সময়ে ফেসবুকের তথ্য ফাঁসের চেয়েও বড় তথ্য ফাঁস কেলেঙ্কারি হতে যাচ্ছে বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।