Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

১৭০ ফুট বিদ্যুতের খুঁটির চূড়ায় যুবক, নামানো হলো আজান শুনিয়ে

এক লাখ ৩২ হাজার ভোল্টের বিদ্যুতের ১৭০ ফুট উচ্চতার খুঁটির চূড়া থেকে প্রায় ৩ ঘণ্টা পর নাসিরকে উদ্ধার করে ফায়ার সার্ভিস। নাসির দাবি করেছেন, তিনি কিছু করেন না। জ্বিন তাকে দিয়ে এমন ধরনের কাজ করায় 

আপডেট : ২৬ মে ২০২৩, ০৯:৪৪ এএম

এক লাখ ৩২ হাজার ভোল্টের বিদ্যুতের ১৭০ ফুট উচ্চতার খুঁটির চূড়া থেকে প্রায় ৩ ঘণ্টা পর এক যুবককে উদ্ধার করেছে ফায়ার সার্ভিস। ওই যুবক খুঁটির চূড়ায় উঠে “আল্লাহ” “আল্লাহ” জিকির করছিলেন। এ সময় তাকে ছটপট করতে দেখা যায়। নিচ থেকে এ দৃশ্য দেখতে পেয়ে উৎসুক জনতা ওই যুবককে নেমে আসার অনুরোধ করেন। কিন্তু লাপাত্তা সেই যুবক, থাকেন নিজের খেয়ালেই।

অবশেষে ঘটনাস্থলে আসে ফায়ার সার্ভিসের একটি দল। তাদের নানা চেষ্টাও প্রায় বিফল হতে যাচ্ছিল। ৩ ঘণ্টায়ও নামানো যায়নি সেই যুবককে। শেষমেশ কাজে আসে ভিন্ন কৌশল। হ্যান্ড মাইকে আজানের ধ্বনি শুনিয়ে তাকে নিচে নামানো হয়। চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, তিনি এখন শঙ্কামুক্ত।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) এমন ঘটনা ঘটেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ার তিতাস সেতু এলাকায়। উদ্ধার হওয়া যুবকের নাম নাসির উদ্দিন; তিনি নোয়াখালী সেনবাগের ইয়ারপুর গ্রামের বাসিন্দা। ওই যুবক দাবি করেছেন, তিনি কিছু করেন না। জ্বিন তাকে দিয়ে এমন ধরনের কাজ করায়।

আখাউড়া উপজেলা ফায়ার সার্ভিস কর্মকর্তা মুনিম সারোয়ার বলেন, “বৃহস্পতিবার সকালে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় আমাদের একটি প্রতিনিধি দল। বিদ্যুতের খুঁটির চূড়ায় উঠে বসে থাকা যুবককে নিচে নেমে আসার অনুরোধ জানালেও তিনি কারও কথা শোনেননি। শেষে মোবাইল ফোন থেকে হ্যান্ড মাইকে আজানের ধ্বনি শোনানো হয়। এ সময় তিনি স্বেচ্ছায় খুঁটির ওপর থেকে নেমে আসেন।”

ওই যুবকের মানসিক সমস্যা রয়েছে বলে ধারণা করছে ফায়ার সার্ভিস।

যুবক নাসির উদ্দিন বলেন, “জ্বিন তাকে গাছে ও বিভিন্ন খুঁটিরও চূড়ায় ওঠায়। পানিতে ফেলে দেয়। এর সময় তার করার কিছু থাকে না। তবে আজানের আওয়াজ পেলে জ্বিন ছেড়ে চলে যায়। এ সময় তিনি স্বাভাবিক অবস্থায় ফিরে আসতে পারেন।”

About

Popular Links