Thursday, May 23, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

গাছ লাগানোর শর্তে জামিন পেলেন গাঁজাসহ ধরা পড়া দুই তরুণ

৫০টি গাছ রোপণ ও পরিচর্যার শর্তে চাঁপাইনবাবগঞ্জের দুই তরুণকে জামিন দিয়েছেন আদালত

আপডেট : ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:০১ পিএম

আট মাস আগে গাঁজাসহ র‍্যাবের হাতে ধরা পড়েন চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাসির উদ্দীন ও সিয়াম আলী নামের দুই তরুণ। এক মাস পর তাদের বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে আদালতে অভিযোগপত্র দেয় পুলিশ। ৫০টি গাছ রোপণ ও পরিচর্যার শর্তে তাদেরকে জামিন দিয়েছেন আদালত।

বুধবার (২৪ এপ্রিল) চাঁপাইনবাবগঞ্জের জ্যেষ্ঠ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. হ‌ুমায়ূন কবীর এই আদেশ দেন। পাশাপাশি কাজটি ঠিকমতো করলে এক মাস পর মামলা থেকেও অব্যাহতি দেওয়া হবে।

রায়ের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আদালতের বিচারক ও আইনজীবীরা। কারামুক্ত হওয়া নাসির উদ্দীন সদর উপজেলার বারঘরিয়া ইউনিয়নের বাসিন্দা ও সিয়াম আলী বারঘরিয়া জামাদারপাড়া এলাকার বাসিন্দা।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০২৩ সালের ২৯ আগস্ট র‍্যাবের হাতে ধরা পড়েন নাসির উদ্দীন ও সিয়াম আলী। এরপর র‍্যাবের চাঁপাইনবাবগঞ্জ ক্যাম্পের উপসহকারী পরিচালক ফখরুল ইসলাম বাদী হয়ে তাদের বিরুদ্ধে সদর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে একটি মামলা দায়ের করেন। একই বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর তাদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন তদন্তকারী কর্মকর্তা মো. দারেশ আলী। আদালত দীর্ঘ শুনানির পর সংশোধনের উদ্দেশ্যে তাদের কারামুক্তির আদেশ দেন।

আদালতের আদেশ অনুযায়ী, ওই দুই তরুণকে স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যানের দেখিয়ে দেওয়া জায়গায় ৫০টি ফলজ বা বনজ গাছ লাগাতে হবে। এরপর তারা গাছের পরিচর্যা করবেন। তাদের এই কাজের তদারক করবেন ইউপি চেয়ারম্যান। এক মাস পর চেয়ারম্যান আদালতে প্রতিবেদন দিবেন। এরপর কাজটি ঠিকমতো হলে আদালত তাদের মামলা থেকে অব্যাহতি দেবেন।

এ বিষয়ে বারঘরিয়া ইউপির চেয়ারম্যান হারুনর রশীদ বলেন, “আজ (বৃহস্পতিবার) দুপুর পর্যন্ত আদালতের কোনো নির্দেশনা পাইনি। ওই তরুণেরাও আমার সঙ্গে যোগাযোগ করেননি। যে দিন থেকে তারা কাজ শুরু করবেন, সে দিন থেকেই গণনা শুরু হবে।”

আদালতের নির্দেশনা ভালোভাবে প্রতিপালনের পরই আদালতে প্রতিবেদন দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

আসামিপক্ষের আইনজীবী শাহীন আল মামুন বলেন, “আদালতের এই রায়ে আমি খুবই খুশি। আসামিরা আদালতে ভবিষ্যতে এমন অপরাধ করবেন না মর্মে জবানবন্দি দেন। আদালত তাদের সংশোধনের উদ্দেশ্যে এই রায় দিয়েছেন।”

About

Popular Links