Saturday, June 22, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

রাজশাহীতে পর্যটন নিয়ে কাজ করতে আগ্রহী ইন্দোনেশিয়া

এছাড়া, শিক্ষানগরী রাজশাহীর শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেওয়ার আগ্রহও প্রকাশ করেছে দেশটি

আপডেট : ০৫ জুন ২০২৪, ০৭:৫০ পিএম

রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটনের সঙ্গে বৈঠক করেছেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূত হেরু হারতান্তো সুবোলো। 

বুধবার (৫ জুন) বিকেল ৩টায় নগর ভবনের মেয়র দপ্তর কক্ষে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। বৈঠকে রাজশাহীতে কৃষি, শিক্ষা, সংস্কৃতি ও পর্যটনখাতে কাজের আগ্রহ প্রকাশ করেছেন ইন্দোনেশীয় রাষ্ট্রদূত। সিটি কর্পোরেশনের সঙ্গে কাজের আগ্রহ প্রকাশ করায় ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূতকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান রাসিক মেয়র লিটন।

বৈঠকে ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূত হরু হারতান্তো সুবোলো বলেন, “ইন্দোনেশিয়ায় অনেক উন্নতমানের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান রয়েছে। ইন্দোনেশীয় শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে রাজশাহীর শিক্ষার্থীদের এক বছর মেয়াদি বৃত্তি এবং শিল্পকলায় তিন মাস মেয়াদি বৃত্তি দিয়ে উভয় দেশের জ্ঞান ও সংস্কৃতি বিনিময় করতে চাই। এছাড়া রাজশাহী যেহেতু কৃষিপ্রধান অঞ্চল, তাই এ অঞ্চলের উৎপাদিত পণ্য নিয়ে কাজ করতে আমরা আগ্রহী।”

তিনি আরও বলেন, “এটি আমার রাজশাহীতে প্রথম সফর। রাজশাহীর পরিচ্ছন্নতা ও সিটি মেয়রের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা ও ভিশন দেখে মুগ্ধ হয়েছি।”

রাসিক মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, “ইন্দোনেশিয়া আমাদের বন্ধুপ্রতিম রাষ্ট্র। ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূতের সাথে দীর্ঘক্ষণ বৈঠক হয়েছে। তিনি রাজশাহীর সঙ্গে কৃষি, শিক্ষা, সংস্কৃতি ও পর্যটন ইত্যাদি খাতে সহযোগিতার আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। সোলার প্ল্যান্ট স্থাপন, শিক্ষার্থীদের বৃত্তি ও পর্যটনের কোন কোন ক্ষেত্রে কাজ করা যায়, সেটি আমরা রাষ্ট্রদূতকে সুর্নিদিষ্টভাবে লিখিতভাবে জানাব।”

রাসিক মেয়র লিটন আরও বলেন, রাজশাহী কৃষিপ্রধান অঞ্চল। কৃষিপণ্যভিত্তিক শিল্প প্রতিষ্ঠার বিষয়ে আলোচনা করেছি। এছাড়া শিক্ষানগরী রাজশাহীতে অনেক শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান রয়েছে। এখানকার শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেওয়ার বিষয়ে ইন্দোনেশিয়ার রাষ্ট্রদূত আগ্রহী। এটি চালু হলে জ্ঞান বিনিময়ে উভয় দেশ লাভবান হবে।

About

Popular Links