Friday, June 21, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

ডিএনসিসি মেয়র: কাউন্সিলররা সতর্ক থাকলে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ সম্ভব

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে জনসচেতনতা বাড়ানোর পরামর্শ দেন মেয়র

আপডেট : ৩১ জুলাই ২০২৩, ১২:০৯ এএম

ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেছেন, “কাউন্সিলররা নিজেদের ওয়ার্ডের জনগোষ্ঠীর সঙ্গে সরাসরি সম্পৃক্ত। কর্মকর্তাদের সঙ্গে কাউন্সিলররা মাঠে থাকলে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ সম্ভব হবে।”

রবিবার (৩০ জুলাই) দুপুরে গুলশান-২ নগর ভবনের ষষ্ঠতলায় অডিটোরিয়ামে এক বিশেষ সভায় এ কথা বলেন তিনি।

চলমান ডেঙ্গু পরিস্থিতি প্রতিরোধে মশক নিধন কার্যক্রম জোরদার করতে কাউন্সিলর ও কর্মকর্তাদের নিয়ে বিশেষ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

মেয়র আতিক বলেন, “কাউন্সিলরদের নেতৃত্বে যে টাস্কফোর্স কমিটি গঠন করা হয়েছে সেটি নিজ নিজ এলাকায় মশক নিধন কার্যক্রমের পাশাপাশি প্রচারণা চালাবে। সিটি কর্পোরেশন থেকে শিক্ষার্থীদের জন্য যে আর্ট বুক ছাপানো হয়েছে প্রতিটি ওয়ার্ডের সব কিন্ডারগার্টেন ও প্রাইমারি স্কুলের শিক্ষার্থীদের মধ্যে সেটি বিতরণ করবে কাউন্সিলররা।”

মেয়র বলেন, “নির্মাণাধীন ভবনে এডিসের লার্ভা পাওয়া যায়। কাউন্সিলররা নিজেদের ওয়ার্ডের নির্মাণাধীন ভবন মালিককে চিঠি দেবে, যেন পানি জমে না থাকে।”

সেই সঙ্গে নির্মাণাধীন ভবনের তালিকা প্রনয়ণ করবে। এই তালিকা অনুযায়ী আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে গঠিত র‍্যাপিড একশন টিম পরিদর্শন করে আইনগত ব্যবস্থা নেবে বলেও জানান তিনি।

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে জনসচেতনতা বাড়ানোর পরামর্শ দিয়ে মেয়র আতিক বলেন, “কাউন্সিলররা প্রতিটি এলাকার মসজিদের ইমাম, স্কুলের শিক্ষক ও অভিভাবকদের সঙ্গে সভা করে মশক নিধনে করণীয় সম্পর্কে জানাবে। বিভিন্ন সোসাইটির প্রতিনিধিদের সঙ্গেও সভা করে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে সচেতনতা কার্যক্রমে সম্পৃক্ত করবেন।”

“যেসব বাড়িতে ডেঙ্গু রোগী আছে তার তালিকা ও পার্শ্ববর্তী এলাকায় লার্ভিসাইডিং বাড়াতে হবে,” যোগ করেন মেয়র আতিক।

About

Popular Links