Saturday, May 25, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

এক ভিসায় যাওয়া যাবে মধ্যপ্রাচ্যের ৬ দেশে

এক ভিসাতেই যাওয়া যাবে সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, কাতার, কুয়েত, বাহরাইন এবং ওমানে

আপডেট : ১৫ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৯:৪২ পিএম

উপসাগরীয় অঞ্চলের ছয়টি দেশে একক ভিসা পদ্ধতির অনুমোদন দিয়েছে দেশগুলোর জোট গালফ কো-অপারেশন কাউন্সিল (জিসিসি)। দেশগুলোর মধ্যে পারস্পরিক সম্পর্ক বাড়ানোর পাশাপাশি পর্যটকদের আকৃষ্ট করতে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। অনেকটা ইউরোপের শেনজেন অঞ্চলভুক্ত দেশগুলোর মতো এ ভিসা পদ্ধতিকে ঐতিহাসিক বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা।

একক ভিসা পদ্ধতি চালুর অর্থ হলো পর্যটকরা এক ভিসা দিয়েই সৌদি আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত, কাতার, কুয়েত, বাহরাইন এবং ওমানে ভ্রমণ করতে পারবেন। এর মাধ্যমে ওই অঞ্চলে আন্তর্জাতিক পর্যটকের সংখ্যা যেমন বাড়বে, তেমনি বহির্বিশ্বের সামনে নিজেদের সংস্কৃতিও উপস্থাপন করার সুযোগ তৈরি হবে।

খালিজ টাইমসের খবর বলছে, কাতারের রাজধানী দোহায় জিসিসি’র ৪৪তম শীর্ষ সম্মেলন চলাকালে একক ভিসা চালুর সিদ্ধান্ত জানিয়েছেন সৌদি আরবের পর্যটনমন্ত্রী আহমেদ বিন আকিল আল-খতিব। এরইমধ্যে একক ভিসা চালুর এ সিদ্‌ধান্ত কার্যকর করার ব্যাপারে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিতে দেশগুলোর স্বরাষ্ট্র মন্ত্রীদের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

তবে একক ভিসা চালুর কাজটি বেশ জটিল। এর জন্য পুরো ভিসা প্রক্রিয়াটিকে একীভূত করতে হবে, রয়েছে নিরাপত্তার বিষয়টি বজায় রাখার চ্যালেঞ্জ।

সংযুক্ত আরব আমিরাতের অর্থমন্ত্রী আবদুল্লাহ বিন তৌক আল মারি বলেছেন, “একক ভিসার জন্য প্রয়োজনীয় বিধি-বিধান প্রণয়নের কাজ চলছে।”

জিসিসিভুক্ত দেশগুলোর নিজস্ব ব্যবস্থাপনা প্রস্তুত হয়ে গেলে ২০২৪-২৫ সালের মধ্যেই একক ভিসা চালু করা সম্ভব হবে। উপসাগরীয় দেশগুলো একক ভিসার ফি সংক্রান্ত বিষয়গুলো একটি সুনির্দিষ্ট কাঠামোর মধ্যে আনার জন্য কাজ করে যাচ্ছে।

একক ভিসার মাধ্যমে পর্যটকরা ঝামেলামুক্ত ভ্রমণ করতে পারবেন। এক ভিসায় উপসাগরীয় ছয়টি দেশের সমৃদ্ধ সংস্কৃতির সঙ্গে পরিচিত হওয়ার পাশাপাশি দর্শনীয় স্থানগুলো ঘুরে দেখার সুযোগ হবে।

শিল্পখাত সংশ্লিষ্টরা বলছেন, এই ভিসা পদ্ধতির সবচেয়ে বড় উপকারভোগী হবে সংযুক্ত আরব আমিরাতের দুবাই এবং সৌদি আরব।

বৈশ্বিকভাবে পর্যটকদের কাছে দুবাইয়ের সুনাম রয়েছে। আবার সৌদি আরবের মক্কা ও মদিনায় মুসলিম ধর্মাবলম্বীরা গিয়ে থাকেন। একক ভিসার কারণে এই দুই দেশের মধ্যে পর্যটন খাতে মেলবন্ধন তৈরি হবে।

About

Popular Links