Sunday, May 26, 2024

সেকশন

English
Dhaka Tribune

‘অসুস্থ’ মাকে দেখতে বাহরাইনে যেতে চান জ্যাকুলিন, আদালতের অনুমতি নেই

প্রতারক সুকেশ চন্দ্রশেখরের ২০০ কোটি রুপি তছরুপের মামলার সঙ্গে বলিউড নায়িকা জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজের নাম জড়িয়েছে। ওই মামলায় গত ১৫ নভেম্বর দিল্লির এক আদালত দুই লাখ রুপি মুচলেকার বিনিময়ে তাকে জামিন দিয়েছিলেন

আপডেট : ২৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১১:০২ এএম

প্রতারক সুকেশ চন্দ্রশেখরের ২০০ কোটি রুপি তছরুপের মামলার সঙ্গে বলিউড নায়িকা জ্যাকুলিন ফার্নান্দেজের নাম জড়িয়েছে। ওই মামলায় গত ১৫ নভেম্বর দিল্লির এক আদালত দুই লাখ রুপি মুচলেকার বিনিময়ে তাকে জামিন দিয়েছিলেন। তবে, আদালত শর্ত দিয়েছিলেন, এই বলিউড নায়িকা আদালতের অনুমতি না নিয়ে দেশ ছাড়তে পারবেন না। 

সম্প্রতি ভারতের পাতিয়ালা আদালতে আবার দেখা গেছে এই অভিনেত্রীকে। তিনি অসুস্থ মাকে দেখতে বাহরাইন যেতে চাওয়ার অনুমতি চেয়েছেন আদালতের কাছে।

আদালতের পক্ষ থেকে বৃহস্পতিবার (২২ ডিসেম্বর) উপদেশ দেওয়া হয়, এই মামলা আপাতত “সংবেদশীল” পর্যায়ে রয়েছে, সম্ভব হলে জ্যাকলিনের উচিত বিদেশ যাওয়ার পরিকল্পনা ত্যাগ করা। এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস।

সুকেশ চন্দ্রশেখর সম্পর্কিত জালিয়াতির মামলায় অন্যতম অভিযুক্ত জ্যাকলিন। এদিন আদালতে শুনানি চলাকালীন জ্যাকলিনের আইনজীবী আদালতকে জানান, অভিনেত্রীর মা ২০২১ সালের ডিসেম্বরে ব্রেন স্ট্রোকের শিকার হন, তারপর থেকে গুরুতর অসুস্থ তিনি। মানবিকতার খাতিরে জ্যাকলিনের আবেদন মঞ্জুরের কথা বলা হয়।

আদালত পাল্টা প্রশ্ন করেন, কীভাবে জ্যাকলিন ওই দেশে যাওয়ার ভিসা পাবেন? জবাবে অভিনেত্রীর আইনজীবী জানান, “তার বাবা-মা সে দেশেই থাকেন। আগে থেকেই জ্যাকলিনের কাছে বাহরাইনের ভিসা রয়েছে।”

এরপর আদালত জ্যাকলিনের বিদেশযাত্রায় “আপত্তি” তুলে বলেন, এই মুহূর্তে সুকেশ মামলা খুব গুরুত্বপূর্ণ ধাপে রয়েছে, শুনানি চলাকালীন জ্যাকলিনের উপস্থিতি জরুরি।

আদালত জানান, “আমি বুঝতে পারছি বিষয়টা খুবই আবেগের, তবে এই মুহূর্তে এই মামলা খুব জরুরি পর্যায়ে রয়েছে।”

অভিনেত্রীর আইনজীবীরা আরও জানান, মামলার পরবর্তী শুনানি ৬ জানুয়ারি। জ্যাকলিন যেকোনো উপায়ে ৫ জানুয়ারির মধ্যে ভারতে ফিরে আসবেন। পাশাপাশি জ্যাকলিন এই মামলার ১০ নম্বর অভিযুক্ত। ৬ জানুয়ারি সুকেশ চন্দ্রশেখরকে কাঠগড়ায় তোলা হবে, জ্যাকলিনের নম্বর আসতে সময় লাগবে। তাতেও মন গলেনি আদালতের।

অন্যদিকে দেশটির এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি) জ্যাকলিনের এই আবেদনের বিরোধিতা করেছে। ইডি জানিয়েছে, জ্যাকলিন বিদেশি নাগরিক। একবার দেশ ছাড়লে তাকে ফেরানো কঠিন হতে পারে। জন্মসূত্রে জ্যাকলিনের বাবা-মা শ্রীলঙ্কান। তবে তার জন্ম ও বড় হওয়া বাহরাইনে।  

সবশেষে আদালত জ্যাকলিনের উদ্দেশে বলেন, “আমি আপনার ওপর ছেড়ে দিচ্ছি আপনি এই আবেদন প্রত্যাহার করতে চান নাকি এই নিয়ে বিচার বিভাগের রায় শুনতে চান?” পরে জ্যাকলিন আবেদন প্রত্যাহার করে নেন।

About

Popular Links